গ্যাস বিক্রির মুচলেকা দিয়েছিল কে ?

Share This
Tags

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট: 

www.newsbdn.com

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, তারা (বিএনপি) যখনই ক্ষমতায় এসেছে, তখনই অর্থসম্পদের মালিক হয়েছে। যারা অর্থসম্পদের মালিক হয়েছে, তাদের জোরে ক্ষমতায় থাকার চেষ্টা করেছে। এটা ছাড়া তারা আর কিছুই করেনি।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আজকে খুব ভারতবিরোধী কথা শুনি। আমার প্রশ্ন, ২০০১ সালের নির্বাচনের আগে যখন মার্কিন কোম্পানি আমাদের গ্যাস বিক্রি করতে চাইল ভারতের কাছে, তখন গ্যাস বিক্রির মুচলেকা দিয়েছিল কে ? খালেদা জিয়া। মুচলেকা দিয়েই তো ক্ষমতায় এসেছিল।’

তিনি বলেন, আমি তো মুচলেকা দেইনি। আমি তো চেয়েছিলাম আমার দেশের সম্পদ আগে দেশের মানুষের কাজে লাগবে। ৫০ বছরের রিজার্ভ থাকবে। তারপরে আমরা ভেবে দেখবো বিক্রি করবো কি করবো না।

শনিবার খামারবাড়ির কৃষিবিদ ইনিস্টিটিউশন মিলনায়তনে যুব মহিলা লীগের সম্মেলনের উদ্বোধন অধিবেশনে শেখ হাসিনা এ কথা বলেন।প্রধানমন্ত্রী বলেন, যারা (বিএনপি) ভারতের কাছে কিছুই আদায় করতে পারেনি এখন আবার তারাই ভারতের বিরুদ্ধে কথা বলছে। এ সমস্ত খেলা তারা বহু খেলেছে। তাদের কোনো দেশপ্রেম নাই। ক্ষমতা তাদের কাছে ভোগের বস্তু।

তিনি বলেন, ‘বিএনপির নীতিনির্ধারকরা সব সময়ই ইন্দিরা-মুজিব চুক্তি বিরোধী বক্তব্য দিয়ে আসছেন। আওয়ামী লীগ ভারতের স্বার্থ রক্ষা করছে বলেও তারা অভিযোগ করে থকেন। কিন্তু বিএনপি, জিয়াউর রহমান, এরশাদ, খালেদা জিয়া যারাই ক্ষমতায় ছিল কেউ তো কখনো একবারের জন্যও সীমানার দাবি করেনি। সীমানা নির্দিষ্ট করার পদক্ষেপও নেয়নি।

ব মহিলা লীগের সভাপতি নাজমা আক্তারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন- আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক ফজিলাতুন্নেসা ইন্দিরা, যুব মহিলা লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি জাকিয়া পারভিন মণি, সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল প্রমুখ। অন্যান্যের মধ্যে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

বিকেল ৩টা থেকে সম্মেলনের দ্বিতীয় অধিবেশন শুরু হয়। এ অধিবেশনে যুব মহিলা লীগের নেতৃত্ব নির্বাচন করা হয়। নাজমা আক্তার ও অপু উকিল সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে পুনর্নির্বাচিত হন।

প্রসঙ্গত, ২০০২ সালের ৬ জুলাই প্রতিষ্ঠার পর ২০০৪ সালের ৫ মার্চ যুব মহিলা লীগের প্রথম জাতীয় সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। তখন নাজমা আকতার সভাপতি এবং অপু উকিল সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।

আপনার মন্তব্য লিখুন